সুস্বাদু ‘ইলিশ পাতুরি’

চলছে ইলিশের মৌসুম। এই সময় নানা পদের ইলিশ মাছের রেসিপি সহজেই জিভে জল এনে দেয়। তবে সব সময় একভাবে রান্না না করে আজ স্বাদ ফেরাতে তৈরি করতে পারেন ইলিশের পাতুরি। যা খেতে যেমন সুস্বাদু, তেমনি পুষ্টিকরও।

চলুন তবে জেনে নেয়া যাক ইলিশ পাতুরি তৈরির সহজ রেসিপিটি-

উপকরণ: ছয় টুকরা ইলিশ মাছ, ছয়টি বড় ও ফ্রেশ লাউ পাতা, ১২-১৪টি কাঁচামরিচ, এক টেবিল চামচ সাদা সরিষা দানা, এক টেবিল চামচ কালো সরিষা দানা, এক টেবিল চামচ পোস্তাদানা গুঁড়া, আধা কাপ নারকেল, ৫০ গ্রাম টকদই, এক চা চামচ হলুদ গুঁড়া, চার টেবিল চামচ সরিষার তেল, লবণ স্বাদমতো।

প্রণালী: ইলিশ মাছের টুকরাগুলো ভালোভাবে কেটেবেছে ধুয়ে আধা চা চামচ হলুদ গুঁড়া ও লবণ দিয়ে মাখিয়ে মেরিনেট করে রাখতে হবে। এর মাঝে কুসুম গরম পানিতে সাদা ও কালো সরিষা দানা ১৫ মিনিটের জন্য ভিজিয়ে রাখতে হবে।

একইভাবে ভিন্ন পাত্রে কুসুম গরম পানিতে পোস্তাদানা ১৫ মিনিটের জন্য ভিজিয়ে রাখতে হবে। এবারে সাদা ও কালো সরিষা দানা, পোস্তাদান, নারকেল ও ৫-৬টি কাঁচামরিচ একসঙ্গে বেটে বা ব্লেন্ড করে পেস্ট তৈরি করে নিতে হবে। চাইলে এতে আধা চা চামচ হলুদ গুঁড়াও যোগ করা যাবে।

এই মিশ্রণে তিন টেবিল চামচ সরিষার তেল ও টকদই একসঙ্গে মিশিয়ে নিতে হবেংপ্রতিটি লাউ পাতা প্লেটের উপরে সমানভাবে বিছিয়ে তার উপরে তৈরিকৃত মিশ্রণটি এক চামচ করে ছড়িয়ে দিতে হবে।

এর উপরে এক টুকরো করে মেরিনেট করে রাখা মাছ দিতে হবে এবং মাছের উপরে আরো এক চামচ মিশ্রণ দিতে হবে। তার উপরে সরিষার তেল ও কাঁচামরিচ দিয়ে পাতা মুড়িয়ে সুতাতে বেঁধে দিতে হবে।

হাতের কাছে সুতা না থাকলে টুথপিকের সাহায্যেও আটকে দেওয়া যাবে। এভাবে সবগুলো মাছ মুড়ে নিতে হবে।এবারে একটি নন-স্টিকি প্যানে দুই টেবিল চামচ তেল দিয়ে তেল গরম করে প্যানে প্রতিটি লাউ পাতায় মোড়ানো মাছ দিয়ে চুলার জ্বাল কমিয়ে দিয়ে প্যানের মুখ ঢেকে ১৫ মিনিট অপেক্ষা করতে হবে।

১৫ মিনিট পর ঢাকনা খুলে মাছগুলো উল্টে দিয়ে আবারো ঢাকনা বন্ধ করে পনের মিনিট অপেক্ষা করতে হবে।

প্রয়োজনে পনের মিনিট পর আবারো উল্টে দিতে হবে। মাছ ভাপে রান্না হয়ে গেলে চুলার জ্বাল বন্ধ করে গরম ভাতের সঙ্গে পরিবেশন করতে হবে।