আপনার সন্তানের অপছন্দের বিষয়ে যেভাবে তাকে আগ্রহী করবেন, দেখুন বিস্তারিত

সব বিষয়ে সন্তানের পড়ার আগ্রহ নাও থাকতে পারে। অনেক সময় মা-বাবা তাঁদের পছন্দ-অপছন্দ সন্তানের ওপর চাপিয়ে দেন। কিছু বিষয় থাকে, সন্তান পড়তে না চাইলেও শিশুকালে পড়তে হবে। তখন আসলে করার কোনো কিছু থাকে না। বরং অভিভাবকদের চেষ্টা করতে হবে কতটা আকর্ষণীয়ভাবে তুলে ধরা যায় বিষয়টা। শেখানো যায় সন্তানকে।

এর জন্য প্রথমেই যা করতে হবে তা হলো সন্তানের মনের সব ধরনের ভয় দূর করতে হবে। বলবেন, চেষ্টা করে যেতে। তাঁকে ভালো করতেই হবে—এই ধরনের কোনো লক্ষ্য সামনে দিয়ে দেবেন না। তাহলে প্রত্যাশার চাপে ও আতঙ্কে আরও খারাপ করবে।

এই বিষয় পড়ে পৃথিবীতে কারা কারা অনেক ভালো করছেন, তাঁদের কথা গল্পের ছলে শোনাতে পারেন। কিন্তু কোনো অবস্থাতেই তুলনা করবেন না। তাহলে সন্তানের মনে হীনম্মন্যতা গড়ে উঠবে। যতটা সহজভাবে বিষয়কে উপস্থাপন করা যায়, তা-ই করবেন। পড়াটির সঙ্গে বাস্তব জীবনের কোনো কিছুর মিল দেখাতে পারলে সহজে মনে রাখতে পারবে আপনার সন্তান।

কোনো কারণে পরীক্ষায় সেই নির্দিষ্ট বিষয়ে ফল খারাপ করলে বকাবকি না করে তাকে পরবর্তীতে ভালো করার জন্য অনুপ্রাণিত করতে হবে। একটানা না পড়িয়ে একটু বিরতি নিয়ে সন্তানকে পড়াবেন। উৎসাহ দেওয়ার পাশাপাশি সন্তান যেন পুষ্টিকর খাবার খায় ও পর্যাপ্ত ঘুমায় সেটাও খেয়াল রাখতে হবে।