যেভাবে ফ্রিজ ব্যবহার করলে কম আসবে বিদ্যুতের বিল, জেনে নিন বিস্তারিত

শীত থেকে গ্রীষ্ম—আজকাল ফ্রিজ ছাড়া গৃহিণীরা একটা মুহূর্ত কল্পনা করতে পারে না। পানি ঠাণ্ডা রাখা, খাবার ভালো থাকা, ফল তরতাজা রাখাসহ নানা কাজে ফ্রিজের বাহাদুরি বলার অপেক্ষা রাখে না।

ঝামেলা একটাই, মাস শেষে বাড়ির ইলেকট্রিক বিল দেখে মাথায় হাত পড়ে। তখন মনে হয়, মাঝে কিছুদিন ফ্রিজ বন্ধ থাকলে হয়তো ভালো হতো। তবে, নির্দিষ্ট নিয়ম মেনে ফ্রিজ ব্যবহার করলে বিদ্যুতের বিল অনেক কম আসবে।

* ফ্রিজের মধ্যে যত ফাঁকা জায়গা থাকবে, তাপমাত্রা ধরে রাখার ক্ষমতা তত কমে যাবে। তাই খালি ফ্রিজ না চালানোই ভালো। ফ্রিজে এমনভাবে জায়গা রাখুন যাতে বাতাস চলাচলের মতো জায়গা থাকে।

* ফ্রিজের তাপমাত্রা ঠিক রাখতে জলের বোতলে জলের সঙ্গে নুন মিশিয়ে রাখুন। কখনও যদি লোডশেডিং-জনিত সমস্যা হয়, তাহলেও খাবার নষ্ট হবে না।

* গরম খাবার ফ্রিজে রাখবেন না। যে কোনো খাবার ঠান্ডা হলে তবেই ফ্রিজে রাখুন।

* ফ্রিজের রেগুলেটারের পাওয়ার যত কম থাকবে বিদ্যুৎ বিল তত কম উঠবে।

* বেশিক্ষণ ফ্রিজ খুলে রাখলে ভেতরের ঠাণ্ডা হওয়া বের হয়ে যায়। ফলে কমপ্রেসারের ওপর চাপ পড়ে ও ফ্রিজ আবার নিজেকে ঠাণ্ডা করতে আপনার বিদ্যুৎ খরচ করে। তাই ফ্রিজ খোলার আগেই ঠিক করে নিন কী বের করতে চান।

* যখন দেখবেন ফ্রিজে রাখার মতো কোনো জিনিসই নেই সেরকম, তখন ফ্রিজ বন্ধ রাখাই ভালো।