পিতলের জিনিস আর রুপোর বাসনের চমক ফেরাবেন কিভাবে? শিখে রাখুন এই ঘরোয়া টোটকা

সারা বছর ঠাকুরকে প্রসাদ দিতে বা পুজো করতে খুবই কম বাসন লাগে। কিন্তু বাড়িতে বিশেষ পুজো থাকলে সযত্নে তুলে রাখা সব বাসন তো বার করতেই হয়। অনেক বাড়ির পুজোর বাসন বা সামগ্রী বেশ পুরনো হয়। তার কালচে দাগ কিছুতেই উঠতে চায় না। অথচ পুজোর আগে বাসনগুলি পরিষ্কারও তো করতে হবে। জেনে নিন পুজোর বাসন কী ভাবে পরিষ্কার করতে পারেন।

পিতলের জিনিস

পুজোর কোশাকুশি থেকে শুরু করে পঞ্চপ্রদীপ, সাধারণত সবই পিতলের হয়। প্রদীপগুলি বেশিরভাগ সময়ে তেল লেগে একটু চটচটে হয়ে যায়। এই পিতলের জিনিস পরিষ্কার করার জন্য এক বালতি গরম জলে হাল্কা গুঁড়ো সাবান দিয়ে জিনিসগুলি মিনিট দশেক ভিজিয়ে রাখুন।

এবার একটি লেবু মেশানো বাসন মাজার তরল সাবানের সঙ্গে স্টিল উল দিয়ে ভাল করে বার কয়েক ঘষুন।তার পরে গরম জলে জিনিসগুলি ধুয়ে নিন। এবার জলে ভিজিয়ে রাখা তেঁতুল দিয়ে পিতলের জিনিসগুলি আবারও ঘষুন।হয়ে গেলে আবার গরম জলে ধুয়ে নিন।শেষে ঠান্ডা জল দিয়ে ধুয়ে শুকনো কাপড় দিয়ে মুছে নিলেই দেখবেন সব জিনিস চকচক করছে।

রুপোর বাসন

রুপোর থালা বা রেকাবির ঔজ্জ্বল্য নষ্ট হয়ে গিয়েছে? ধূপ থেকে পড়া ছাই দিয়েই রুপোর বাসন পরিষ্কার করা যেতে পারে। ছাই দিয়ে ভাল করে রুপোর জিনিস ঘষে নিন। এক্ষেত্রে কোনও স্ক্রাবার ব্যবহার করবেন না। হয়ে গেলে একটি শুকনো সুতির কাপড় দিয়ে মুছে নিন।

আর ছাই যদি না থাকে, তাহলে বাড়িতে থাকা টুথপেস্ট দিয়েও রুপোর বাসন পরিষ্কার করা যায়। একটু বেশি পুরনো বা দাগ ধরা রুপোর জিনিস পরিষ্কার করতে গেলে সামান্য বেকিং পাউডার ও অ্যালুমিনিয়াম ফয়েলের টুকরো দেওয়া ফুটন্ত গরম জলে জিনিসগুলি ডুবিয়ে রাখুন। কিছু ক্ষণেই ফিরে আসবে রুপোর ঔজ্জ্বল্য।